halth tips

শীতে মেয়েদের ত্বকের যত্ন ২০২২

শীতে মেয়েদের ত্বকের যত্ন

সামনে শীত আগমন ঘটছে। এই শীতে কিভাবে মেয়েদের ত্বকের যত্ন ত্বকের যত্ন নিবেন। আপনাদের ত্বকের উজ্জলতা কিভাবে ধরে রাখবেন।শীতে কিভাবে সূর্যের অতিবেগুনি রশ্মি থেকে নিজেকে আড়াল করে রাখবেন সেই সম্পর্কে বিস্তারিত কিছু ধারনা আপনাদের দেব।

শীতকালের আবহাওয়া অনেক শুষ্ক হয়ে থাকে। যা মেয়েদের ত্বকের জন্য খুবই ক্ষতিকারক। সূর্যের অতিবেগুনি রশ্মি থেকে নিজের ত্বককে বাঁচাতে হলে একটি ছাতি কিংবা টুপি জাতীয় কিছু ব্যবহার করতে হবে যাতে আপনার ফেজে কোন প্রকার সূর্যের অতিবেগুনি রশ্মি না লাগে।শীতকালে আপনি অনেক ভাল ব্র্যান্ডের সানস্ক্রিন লোশন ব্যবহার করতে পারেন যাতে আপনার শরীরের ত্বক কোনভাবে ফেটে না যায়। এতে আপনার শরীরের ত্বক হবে মসৃণ এবং স্বাস্থ্যোজ্জ্বল। শীতে মেয়েদের ত্বকের যত্ন সম্পর্কে কিছু তথ্য দেওয়া হলো।

আরো পড়ুন:

আজকের আলোচনার বিষয়

  • কিভাবে ত্বকের ময়েশ্চারাইজার ধরে রাখবেন
  • শীতকালে কোন ধরনের সানস্ক্রিন ব্যবহার করবেন
  • শীতকালে কিভাবে আদ্রতা বজায় রাখবেন
  • শীতকালে গরম পানির ব্যবহার
  • শীতকালে ভেজা ত্বকের পরিচর্যা
  • শীতকালে ঠোঁটের পরিচর্যা নিয়ম

ত্বকের ময়েশ্চারাইজার

শীতকালের আবহাওয়া অনেক শুষ্ক থাকে। বাতাসে আর্দ্রতা অনেক বেশি থাকে যার কারণে শরীরের মশ্চারাইজার নষ্ট হয়ে যায়।শরীরের এই মশ্চারাইজার ঠিক রাখার জন্য বাজার থেকে ভালো মানের ময়েশ্চারাইজার ক্রিম কিনতে হবে।বিশেষ করে বাদামের তেল কিংবা এভোকাডোর সমৃদ্ধ ময়েশ্চারাইজার কিনুনএবং যখনই আপনার ত্বক শুষ্ক হয়ে যাবে তখনই এই ক্রিম ব্যবহার করতে হবে। আপনার শরীরের মশরাজার খুব ভালো থাকবে।

শীতকালের সানস্ক্রিনের ব্যবহার

শীতে মেয়েদের ত্বকের যত্ন

শীতকালের আবহাওয়া খুবই আদ্র থাকে যার ফলে আপনার শরীরের স্কিন ফেটে যাওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে এবং সূর্যের অতিবেগুনি রশ্মির মাত্রা অনেক বেশি থাকে যার কারণে আপনাকে সান প্রোটেক্ট থাকতে হবে। এজন্য আপনাকে শীতকালে কোথাও বের হওয়ার আগে মিনিমাম 30 মিনিট আগে এসপিএফ 15-30 সম্পন্ন সানস্ক্রিন ব্যবহার করতে হবে।এতে আপনার শরীরের স্ক্রিন এবং মুখের স্কিন খুব ভালো থাকবে।

শীতকালে আদ্রতা

আগেই বলেছি যে শীতকালে বাতাসের আদ্রতা খুবই কম থাকে। আদ্রতা বলতে বাতাসে জলীয়বাষ্পের পরিমাণ খুবই কম থাকে যার কারণে আপনার অজান্তেই আপনার শরীর থেকে বাতাস পানি শোষণ করে নিয়ে যায়। যার ফলে আপনার শরীরে রুক্ষ ও শুষ্ক হয়ে যাবে। এই আদ্রতা থেকে বাচতে হলে আপনাকে কিছুক্ষণ পরপর মুখে পানির ঝাপটা দিতে হবে। যার ফলে আপনার মুখের ত্বক আদ্রতা ফিরে পাবে।

শীতকালে গরম পানির ব্যবহার

শীতকালে আমরা প্রায়ই গরম পানি ব্যবহার করে থাকে। কারণ অতিরিক্ত শীত পড়লে আমরা ঠাণ্ডা পানি ব্যবহার করতে চাই না যার ফলে গরম পানি দিয়ে আমরা গোসল কিংবা অন্যান্য কাজ করে থাকি। কিন্তু অতিরিক্ত পরিমাণে গরম পানি ব্যবহার করলে আপনার শরীরে স্কিন ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে এবং ত্বকের আদ্র ভাব বাড়িয়ে দেয়।এর জন্য আপনাকে গোসলের সময় গরম পানির সাথে কয়েক ফোঁটা বাদামের তেল মিশিয়ে নিলে ত্বকের আদ্র ভাব বজায় থাকে।

শীতকালে ভেজা ত্বকের পরিচর্যা

শীতকালে গোসলের পর প্রতিবার আপনার ত্বককে ভালো রাখার জন্য মশ্চারাইজার ক্রীম এবং লোশন ব্যবহার করুন। এর ফলে আপনার শরীরের ত্বক শীতকালে খুব ভালো থাকবে।

ঠোঁটের পরিচর্যা

শীতকালে ঠোঁট ফাটা এ বিষয়টা কমন একটা বিষয়। কিন্তু এর থেকে মুক্তি উপায় আছে। শীতকালে কখনই জিব্বা দিয়ে ঠোঁট ভেজাবেন না। আপনি যদি জিব দিয়ে ঠোঁট ভেজানো তাহলে আপনার ঠোঁট ফাটল ধরবে তখন আপনি যেকোন ধরনের ক্রিম ইউজ করলেও তা আপনার আশানুরূপ ফল পাবেন না। আপনি যদি শীতকালে জিব্বা দিয়ে ঠোঁট না বেযান তাহলে আপনার কোন ক্রিম ইউজ করতে হবে না ঠোঁটে।

উপরের এই টিপস গুলো যদি আপনাদের উপকারে আসে তাহলে আমাদের স্বার্থক কারন আপনাদের উপকারের জন্যই আমাদের এই তথ্যগুলো সংগ্রহ করা।যদি আপনাদের আরও ত্বক বিষয়ক কোন কিছু জানার থাকে তাহলে আমাদের কমেন্ট বক্সে যোগাযোগ করুন আমরা তৎক্ষণাৎ তা আমাদের সাইটে আপডেট করে দেবো।