Tips & tricks

বিনা পুজিতে সবচেয়ে লাভজনক ২০ টি ব্যবসা

বিনা পুজিতে সবচেয়ে লাভজনক ২০ টি ব্যবসা

সম্মানিত পাঠক, আজকে আমরা আলোচনা করব বিনা পুঁজিতে লাভজনক ব্যবসা সম্পর্কে। বাংলাদেশের  দিন দিন বেকারত্বের হার বেড়ে চলেছে। এর প্রধান কারণ হচ্ছে দারিদ্রতা। এই দারিদ্র্যের কারণে আমরা টাকাপয়সা বিনিয়োগ করে কোনো ব্যবস্থা করতে পারি না কিংবা পড়াশোনা করতে পারিনা। আজকে আমরা এমন কিছু ব্যবসার কথা আপনাদের সাথে আলোচনা করবো যা করতে আপনাদের একটি টাকাও বুঝে লাগবেনা। বিনা পুঁজিতে আপনারা এ ব্যবসা গুলো করতে পারবেন। বিনা পুজিতে সবচেয়ে লাভজনক ২০ টি ব্যবসা ধারনা নিচে দেওয়া হলো।

ব্যবসা কি?

আমরা ব্যবসা বলতে যা বুঝি তা হচ্ছে। একটি নির্দিষ্ট অর্থ ব্যয় করে একটি নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে মূলধন সহ লভ্যাংশ ফেরত পাওয়ার প্রক্রিয়াকে ব্যবসা বলে। সেটা হতে পারে বেশি টাকা ব্যবসা কিংবা কম টাকার ব্যবসা। ব্যবসা হচ্ছে সাধারণত ব্যক্তিস্বাধীনতার বিষয়। নিজে ব্যবসা করলে আপনি যখন তখন  ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে যেতে পারবেন এবং সেখান থেকে আসতে পারবেন।আর যদি চাকরির কথা বলে তাহলে সেখানে একটি নির্দিষ্ট সময় বেঁধে দেওয়া আছে সে সময় সেখানে উপস্থিত হতে হবে এবং নির্দিষ্ট সময় মতো সেখান থেকে বের হয়ে যেতে হবে।আর চাকরি থেকে প্রতি মাসে একটি নির্দিষ্ট টাকা উপার্জন করা যায় কিন্তু ব্যবসার ক্ষেত্রে আপনি প্রতিমাসে অনির্দিষ্ট একটি লভ্যাংশ পাবেন যেটা বেশি হতে পারে কম হতে পারে।

স্যোসাল মিডিয়া

আপনি যদি সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেক পারদর্শী হয়ে থাকেন তাহলে আপনি খুব সহজে টাকা আর্ন করতে পারবেন। আপনার ফেসবুক কিংবা ইনস্টাগ্রাম কিংবা টুইটারে যদি অনেক ফলোয়ার থাকে তাহলে আপনি সেখান থেকে শত ডলার থেকে হাজার ডলার পর্যন্ত মাসে ইনকাম করতে পারবেন।এর জন্য আপনাকে বিভিন্ন ধরনের কোম্পানির প্রোডাক্ট এড দিতে হবে কিংবা সেল করে দিতে হবে।

ভিডিও ব্লগিং

আপনি যদি ভিডিও ভালোবেসে থাকেন। তাহলে আপনি সেখান থেকেও প্রতি মাসে অনেক টাকা ইনকাম করতে পারবেন। পদ্ধতিটি হলো আপনি একটি ইউটিউব চ্যানেল খুলতে হবে। সেখানে অনেক সুন্দর সুন্দর এবং ইনফরমেটিভ ভিডিও আপলোড করতে হবে। তারপর যখন আপনার ইউটিউব চ্যানেলে অনেক সাবস্ক্রাইবার হবে। তখন আপনি বিভিন্ন কোম্পানির বিজ্ঞাপন ও আপনার ভিডিও ভিউ হওয়ার মাধ্যমে গুগল আপনাকে প্রতিমাসে টাকা দেবে। এভাবে আপনি ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করতে পারেন।

ব্লগিং ব্যবসা

বর্তমান সময়ে ব্লগিং এটা কথা ভাবলেই মনে হয় লেখালেখি করা। ব্লগিং মানে লেখালেখি কথাটি ঠিক আছে কিন্তু আপনি যদি এই লেখালেখিটা কে একটু সাজিয়ে গুছিয়ে লিখতে পারেন তাহলে সেখান থেকে টাকা ইনকাম করা যাবে। আপনি যদি কোনো পণ্য সম্পর্কে বিস্তারিত একটি তথ্য সুন্দরভাবে সাজিয়ে গুছিয়ে লেখতে পারেন তাহলে আপনার সেই আর্টিকেলটি অনেকে আছে যারা কিনতে আগ্রহী। আপনি এই সকল আর্টিকেল বিক্রি করার জন্য ফেসবুকে বিভিন্ন ধরনের গ্রুপ রয়েছে সে সকল গ্রুপের সাথে এড হতে পারেন তাহলে সেখান থেকে আপনার আর্টিকেল পছন্দ হলে তারা উচ্চমূল্যে আপনার আর্টিকেলটি কিনে নেবে। সেখান থেকে আপনি একটি ভালো টাকা আর্নিং করতে পারবেন।