News

ক্রিস রককে চড় মারলেন উইল স্মিথ, স্ত্রীকে নিয়ে রসিকতা করায়

ক্রিস রককে চড় মারলেন উইল স্মিথ, স্ত্রীকে নিয়ে রসিকতা করায়,আজ অনুষ্ঠিত হয়ে গেছে 94 তম অস্কার পুরস্কার। এই অনুষ্ঠানে হলিউডের অনেক বড় বড় অভিনেতা ছিলেন। এই অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনায় ছিলেন ক্রিস রক।

অনুষ্ঠান চলাকালীন সময় ক্রিস কে থাপ্পড় মারলেন উইল স্মিথ। এর কারণ হচ্ছে উইল স্মিথ স্ত্রীকে নিয়ে ক্রিস রক অনেকক্ষণ যাবৎ রসিকতা করছিন। একপর্যায়ে সেই রসিকতা অন্য পর্যায় চলেযায়। যার ফলে ই উইল স্মিথ স্টেজে এসে  সজোরে চড় মেরে বসে।

অনুষ্ঠান চলাকালীন সময়ে তিনি তাকে অনেকবার সতর্ক করে দিয়েছিলেন কিন্তু শেষে সতর্কবাণী মানেনি। যার ফলে সে এক পর্যায়ে বাধ্য হয়ে স্টেজে এসে তাকে থাপ্পর মারতে বাধ্য হয়।

অনুষ্ঠান চলাকালীন সময়ে কমেডি করতে করতে এক পর্যায়ে স্মৃতির স্ত্রী যারা ক্রিকেটকে নিয়ে রসিকতা শুরু করেন ক্রিস। তিনি বলেন আমিন সি আই সি এন এর সিক্যুয়েল অপেক্ষায় আছি। ওই মন্তব্য শুনার পর সামনের সারিতে বসে থাকা যারা মুখ ভঙ্গি দেখে তার অস্পষ্ট বোঝা যাচ্ছিল।

মঞ্চ থেকে নেমে নিজের আসনে গিয়ে চিৎকার করে স্মিথ বলছিলেন, “তোমার নোংরা কথা থেকে আমার স্ত্রীকে দূরে রাখো!”ক্রিসকে এক পর্যায়ে গালিও দিয়ে বসেন স্মিথ।

তার এই অস্পষ্ট মুখ দেখে উঠে দাঁড়ালো তার স্বামীর স্মিথ। তারপর তিনি মঞ্চে গিয়ে কোন দিকে না তাকিয়ে ডান হাতে দিয়ে সজোরে ক্রিসের গালে একটি চড় দেন। তিনি কল্পনাও করতে পারেননি স্পিড তাকে চড় মারবে। সরকার পর তিনি কিছুক্ষণ হতভম্ব হয়ে দাঁড়িয়ে ছিল তারপর কিছুক্ষণের মধ্যে নিজেকে সামলে নেন তিনি।

এ কারণেই সম্ভবত রসিকতা করে জাডাকে ‘জি আই জেন ২’-এর নায়িকার ভূমিকায় দেখার ইচ্ছার কথা বলে রসিকতা করেন ক্রিস। ১৯৯৭ সালে মুক্তি পাওয়া চলচ্চিত্র ‘জি আই জেন’-এ মূল নারী চরিত্রের  অভিনেত্রীর মাথায় চুল কম থাকা নিয়ে অনেক আলোচনার ঝড় ওঠে। স্মিথের স্ত্রী জাডারও চুল কম।

এই ঘটনার পরই শ্রেষ্ঠ অভিনেতার পুরস্কার পান স্মিথ। নিজের ভাষণে বারবার নিজের পরিবারের কথাই বলছিলেন তিনি। তিনি বলেন, ”যে ভাবে ভিনাস-সেরিনার বাবা তাদের ও তাদের পরিবারকে আগলে রেখেছিলেন, তা প্রত্যেক মানুষের কর্তব্য। আমিও এটাই শিখেছি।”